অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি কাকে বলে | অন্তঃক্ষরা গ্রন্থির গুরুত্ব কি

হ্যালো বন্ধুরা, আজকে আমরা অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি কাকে বলে এবং অন্তঃক্ষরা গ্রন্থির গুরুত্ব কি তা নিয়ে আলোচনা করছি ।

অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি কাকে বলে | অন্তঃক্ষরা গ্রন্থির গুরুত্ব কি

অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি কাকে বলে

যেসব গ্রন্থি থেকে হরমোন নিঃসৃত হয়ে রক্ত বা লসিকার মাধ্যমে দেহের বিভিন্ন স্থানে প্রেরিত হয়, সেই সব গ্রন্থিকে অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি বলে ।

যেমন – থাইরয়েড গ্রন্থি, পিটুইটারি গ্রন্থি, অ্যাডরেনাল গ্রন্থি ইত্যাদি ।

অন্তঃক্ষরা গ্রন্থিতে কোনো নালি থাকে না তাই একে নালিবিহীন গ্রন্থি ও বলা হয় ।

অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি কয়টি ও কি কি

মানবদেহে মোট ১৪ টি অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি আছে । যেমন – থাইরয়েড গ্রন্থি, পিটুইটারি গ্রন্থি, হাইপোথ্যালামাস গ্রন্থি, অ্যাডরেনাল গ্রন্থি ইত্যাদি ।

অন্তঃক্ষরা গ্রন্থির গুরুত্ব কি

অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি হল রাসায়নিক বার্তাবহনের একটি অবস্থা, যা হরমোন তৈরীকারক গ্রন্থি দিয়ে গঠিত। মানবদেহে প্রধান অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি হলো থাইরয়েড, পিটুইটারি ও অ‍্যাড্রেনাল গ্রন্থি। মানবদেহে অন্তঃক্ষরা গ্রন্থির ভূমিকা খুবই গুরুত্বপূর্ণ । ভার্টিব্রাটায়, হাইপোথ্যালামাস অন্তঃক্ষরাতন্ত্রে সকল কাজ নিয়ন্ত্রণ করে এবং কিডনিতে সোডিয়ামের সক্রিয় পুনঃশোষণ করে।

অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি থেকে নিঃসৃত রসকে কি বলে

অন্তঃক্ষরা গ্রন্থি থেকে নিঃসৃত রসকে হরমোন বলে ।

আরও পড়ুন –

সাইন্যাপ্স কি | সাইন্যাপ্স এর কাজ কি?

মিয়োসিসকে হ্রাসমূলক বিভাজন বলা হয় কেন

রক্তকণিকা কাকে বলে? রক্ত কণিকা কয় প্রকার ও কি কি ?

যকৃত কি? যকৃত এর কাজ কি কি?

Leave a Comment